Dhaka , Monday, 15 July 2024

বিশ্বের সবচেয়ে শক্তিশালী পাসপোর্ট আমিরাতের

  • Robiul Islam
  • আপডেট টাইম : 08:25:21 am, Tuesday, 16 May 2023
  • 151 বার

নিউজ ডেস্ক: মধ্যপ্রাচ্যের উপসাগরীয় অঞ্চলের দেশ সংযুক্ত আরব আমিরাতের পাসপোর্ট বিশ্বের সবচেয়ে শক্তিশালী ও সেরা পাসপোর্টের খেতাব জিতে নিয়েছে। এক বিবৃতিতে এ তথ্য জানায় আন্তর্জাতিক বিনিয়োগ, দ্বৈত নাগরিকত্ব ও পাসপোর্ট বিষয়ক ট্র্যাকিং সংস্থা নোমাড ক্যাপিটালিস্ট।

বিবৃতিতে বিশ্বের ১৯৯টি দেশের মধ্যে শীর্ষ ১০টি দেশের পাসপোর্টের একটি তালিকা দিয়েছে নোমাড। এই দেশগুলো হলো : ১. সংযুক্ত আরব আমিরাত ২. লুক্সেমবার্গ ৩. সুইজারল্যান্ড ৪. আয়ারল্যান্ড ৫. পর্তুগাল ৬. জার্মানি ৭. চেক রিপাবলিক ৮. নিউজিল্যান্ড ৯. সুইডেন ১০. ফিনল্যান্ড

এর ফলে আমিরাতের পাসপোর্টধারীরা মোট ১৮১টি দেশে ভিসামুক্ত প্রবেশ এবং অন অ্যারাইভাল ভিসা সুবিধা ভোগ করবেন। এছাড়া বিভিন্ন দেশে ভ্রমণ কর থেকে অব্যাহতি সুবিধাও ভোগ করবেন তারা। সেই সঙ্গে দ্বৈত নাগরিকত্ব অর্থাৎ নিজ দেশের পাশাপাশি অন্য কোনো দেশের নাগরিকত্ব গ্রহণের ক্ষেত্রেও তারা অগ্রাধিকার পাবেন।

নোমাড ক্যাপিটালিস্টের তথ্য অনুযায়ী, এই সূচকে ৩৭ দশমিক ৫০ স্কোর পেয়ে ১৮২তম স্থানে রয়েছে বাংলাদেশের পাসপোর্টের অবস্থান। বাংলাদেশের পাসপোর্টধারীরা ভিসামুক্ত অথবা অন-অ্যারাইভাল ভিসায় বিশ্বের ৪৯টি দেশে ভ্রমণ করতে পারেন।

নোমাড ক্যাপিটালিস্টের এই সূচকে ৪৩তম স্থানে রয়েছে মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রের পাসপোর্ট। এছাড়া যুক্তরাজ্য ৩০তম এবং ৩৯তম স্থানে রয়েছে অস্ট্রেলিয়া।

Tag :

Write Your Comment

Your email address will not be published. Required fields are marked *

Save Your Email and Others Information

About Author Information

Robiul Islam

জনপ্রিয় সংবাদ

বিশ্বের সবচেয়ে শক্তিশালী পাসপোর্ট আমিরাতের

আপডেট টাইম : 08:25:21 am, Tuesday, 16 May 2023

নিউজ ডেস্ক: মধ্যপ্রাচ্যের উপসাগরীয় অঞ্চলের দেশ সংযুক্ত আরব আমিরাতের পাসপোর্ট বিশ্বের সবচেয়ে শক্তিশালী ও সেরা পাসপোর্টের খেতাব জিতে নিয়েছে। এক বিবৃতিতে এ তথ্য জানায় আন্তর্জাতিক বিনিয়োগ, দ্বৈত নাগরিকত্ব ও পাসপোর্ট বিষয়ক ট্র্যাকিং সংস্থা নোমাড ক্যাপিটালিস্ট।

বিবৃতিতে বিশ্বের ১৯৯টি দেশের মধ্যে শীর্ষ ১০টি দেশের পাসপোর্টের একটি তালিকা দিয়েছে নোমাড। এই দেশগুলো হলো : ১. সংযুক্ত আরব আমিরাত ২. লুক্সেমবার্গ ৩. সুইজারল্যান্ড ৪. আয়ারল্যান্ড ৫. পর্তুগাল ৬. জার্মানি ৭. চেক রিপাবলিক ৮. নিউজিল্যান্ড ৯. সুইডেন ১০. ফিনল্যান্ড

এর ফলে আমিরাতের পাসপোর্টধারীরা মোট ১৮১টি দেশে ভিসামুক্ত প্রবেশ এবং অন অ্যারাইভাল ভিসা সুবিধা ভোগ করবেন। এছাড়া বিভিন্ন দেশে ভ্রমণ কর থেকে অব্যাহতি সুবিধাও ভোগ করবেন তারা। সেই সঙ্গে দ্বৈত নাগরিকত্ব অর্থাৎ নিজ দেশের পাশাপাশি অন্য কোনো দেশের নাগরিকত্ব গ্রহণের ক্ষেত্রেও তারা অগ্রাধিকার পাবেন।

নোমাড ক্যাপিটালিস্টের তথ্য অনুযায়ী, এই সূচকে ৩৭ দশমিক ৫০ স্কোর পেয়ে ১৮২তম স্থানে রয়েছে বাংলাদেশের পাসপোর্টের অবস্থান। বাংলাদেশের পাসপোর্টধারীরা ভিসামুক্ত অথবা অন-অ্যারাইভাল ভিসায় বিশ্বের ৪৯টি দেশে ভ্রমণ করতে পারেন।

নোমাড ক্যাপিটালিস্টের এই সূচকে ৪৩তম স্থানে রয়েছে মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রের পাসপোর্ট। এছাড়া যুক্তরাজ্য ৩০তম এবং ৩৯তম স্থানে রয়েছে অস্ট্রেলিয়া।