Dhaka , Friday, 24 May 2024

ঈদুল আজহা কবে, জানাল মালয়েশিয়া-ব্রুনাই

  • Robiul Islam
  • আপডেট টাইম : 08:24:10 am, Monday, 19 June 2023
  • 44 বার

মালয়েশিয়া ডেস্ক: মালয়েশিয়া ও ব্রুনাইয়ে পবিত্র জিলহজ মাসের চাঁদ দেখা যায়নি। তাই দেশ দুটিতে আগামী ২৯ জুন (বৃহস্পতিবার) পবিত্র ঈদুল আজহা পালিত হবে।

সংযুক্ত আরব আমিরাতের গবেষণা সংস্থা আন্তর্জাতিক জ্যোতির্বিদ্যা কেন্দ্র (আইএসি) পবিত্র জিলহজ মাসের প্রথম দিনের ঘোষণা দেয়া দেশের তালিকা প্রকাশ করেছে।

রোববার জিলহজ মাসের চাঁদ দেখা না যাওয়ায় মালয়েশিয়া সরকার আগামী ২৯ জুন পবিত্র ঈদুল আজহার দিন ঘোষণা করেছে। এছাড়া দক্ষিণ-পূর্ব এশিয়ার আরেক দেশ ব্রুনাইয়ের আকাশেও জিলহজ মাসের চাঁদ দেখা না যাওয়ায় একইদিন ঈদুল আজহা পালিত হবে।

চাঁদ দেখা সাপেক্ষে ইসলামের ১২ মাসের সূচনা হয়। জিলহজ মাসের চাঁদ দেখার মাধ্যমে হজ ও পবিত্র ঈদুল আজহা কবে উদযাপন করা হবে তা নির্ধারণ করা হয়। সেই অনুযায়ী, ঈদুল আজহার প্রথম দিন জিলহজ মাসের ১০ম দিনে পড়ে। আর পবিত্র আরাফাহ দিবস পালন করা হয় জিলহজ মাসের ৯ম দিনে।

ঈদুল আজহা মুসলমানদের দ্বিতীয় বৃহত্তম উৎসব এবং ত্যাগের উৎসব। ঈদুল আজহার দিন বিশ্বব্যাপী মুসলমানরা পশু কোরবানি দেন। এছাড়া আরাফাহর দিন হজ পালনকারী মুসলমানরা মক্কার বাইরে অবস্থিত আরাফাতের ময়দানে সমবেত হন।

আরবি চান্দ্র বর্ষপঞ্জিকা অনুযায়ী, জিলহজ মাসের ১০ তারিখ ঈদুল আজহা বা কোরবানির ঈদ উদযাপন করেন মুসলমানরা।

Tag :

Write Your Comment

Your email address will not be published. Required fields are marked *

Save Your Email and Others Information

About Author Information

Robiul Islam

ঈদুল আজহা কবে, জানাল মালয়েশিয়া-ব্রুনাই

আপডেট টাইম : 08:24:10 am, Monday, 19 June 2023

মালয়েশিয়া ডেস্ক: মালয়েশিয়া ও ব্রুনাইয়ে পবিত্র জিলহজ মাসের চাঁদ দেখা যায়নি। তাই দেশ দুটিতে আগামী ২৯ জুন (বৃহস্পতিবার) পবিত্র ঈদুল আজহা পালিত হবে।

সংযুক্ত আরব আমিরাতের গবেষণা সংস্থা আন্তর্জাতিক জ্যোতির্বিদ্যা কেন্দ্র (আইএসি) পবিত্র জিলহজ মাসের প্রথম দিনের ঘোষণা দেয়া দেশের তালিকা প্রকাশ করেছে।

রোববার জিলহজ মাসের চাঁদ দেখা না যাওয়ায় মালয়েশিয়া সরকার আগামী ২৯ জুন পবিত্র ঈদুল আজহার দিন ঘোষণা করেছে। এছাড়া দক্ষিণ-পূর্ব এশিয়ার আরেক দেশ ব্রুনাইয়ের আকাশেও জিলহজ মাসের চাঁদ দেখা না যাওয়ায় একইদিন ঈদুল আজহা পালিত হবে।

চাঁদ দেখা সাপেক্ষে ইসলামের ১২ মাসের সূচনা হয়। জিলহজ মাসের চাঁদ দেখার মাধ্যমে হজ ও পবিত্র ঈদুল আজহা কবে উদযাপন করা হবে তা নির্ধারণ করা হয়। সেই অনুযায়ী, ঈদুল আজহার প্রথম দিন জিলহজ মাসের ১০ম দিনে পড়ে। আর পবিত্র আরাফাহ দিবস পালন করা হয় জিলহজ মাসের ৯ম দিনে।

ঈদুল আজহা মুসলমানদের দ্বিতীয় বৃহত্তম উৎসব এবং ত্যাগের উৎসব। ঈদুল আজহার দিন বিশ্বব্যাপী মুসলমানরা পশু কোরবানি দেন। এছাড়া আরাফাহর দিন হজ পালনকারী মুসলমানরা মক্কার বাইরে অবস্থিত আরাফাতের ময়দানে সমবেত হন।

আরবি চান্দ্র বর্ষপঞ্জিকা অনুযায়ী, জিলহজ মাসের ১০ তারিখ ঈদুল আজহা বা কোরবানির ঈদ উদযাপন করেন মুসলমানরা।