Dhaka , Friday, 24 May 2024

রোহিঙ্গা প্রত্যাবাসনে আইসিআরসির আরও সহায়ক ভূমিকা চায় বাংলাদেশ

  • Robiul Islam
  • আপডেট টাইম : 08:14:32 am, Tuesday, 11 July 2023
  • 75 বার

নিউজ ডেস্ক: রোহিঙ্গাদের নিজ দেশ মিয়ানমারে নিরাপদ, টেকসই এবং মর্যাদাপূর্ণ প্রত্যাবাসন নিশ্চিত করতে আন্তর্জাতিক রেড ক্রস কমিটির (আইসিআরসি) আরও সহায়ক ভূমিকার ওপর জোর দিচ্ছে বাংলাদেশ, জানিয়েছেন পররাষ্ট্রমন্ত্রী ড. এ কে আব্দুল মোমেন।

বাংলাদেশে নবনিযুক্ত আইসিআরসি প্রতিনিধিদলের প্রধান অ্যাগনেস ধুর তার প্রমাণপত্র পেশ করার সময় মন্ত্রী এ আহ্বান জানান।

বৈঠকে পররাষ্ট্রমন্ত্রী বাংলাদেশে কোভিড-১৯ মহামারির সময় আইসিআরসির ভূমিকার প্রশংসা করেন।

বাংলাদেশের শান্তিকেন্দ্র্রিক পররাষ্ট্রনীতির কথা উল্লেখ করে ড. মোমেন বলেন, আইসিআরসি একটি বিশ্বস্ত আন্তর্জাতিক সংস্থা। বিশ্বব্যাপী শান্তি ও স্থিতিশীলতার জন্য কাজ করতে তিনি সম্মিলিত প্রচেষ্টার প্রয়োজনীয়তার ওপর জোর দেন।

১৯৭১ সালে মহান মুক্তিযুদ্ধের সময় বাংলাদেশি নাগরিকদের আইসিআরসির মানবিক সহায়তা এবং সমর্থন দেওয়ার কথা তিনি প্রশংসার সঙ্গে স্মরণ করেন। পাশাপাশি বাংলাদেশে অ্যাগনেস ধুর দায়িত্ব পালনে বাংলাদেশ সরকারের পূর্ণ সহায়তার আশ্বাস দেন পররাষ্ট্রমন্ত্রী।

আইসিআরসি প্রতিনিধিদলের প্রধান পররাষ্ট্রমন্ত্রীকে কারাগারের পরিবেশের উন্নতি, স্যানিটেশন এবং পানীয় জলের বিষয়ে বাংলাদেশে তাদের কার্যক্রম সম্পর্কে অবহিত করেন।

একই সঙ্গে অ্যাগনেস ধুর আগামী বছরগুলোতে বাংলাদেশ ও আইসিআরসির মধ্যে সহযোগিতা আরও জোরদার করার ইচ্ছা প্রকাশ করেন।

Tag :

Write Your Comment

Your email address will not be published. Required fields are marked *

Save Your Email and Others Information

About Author Information

Robiul Islam

রোহিঙ্গা প্রত্যাবাসনে আইসিআরসির আরও সহায়ক ভূমিকা চায় বাংলাদেশ

আপডেট টাইম : 08:14:32 am, Tuesday, 11 July 2023

নিউজ ডেস্ক: রোহিঙ্গাদের নিজ দেশ মিয়ানমারে নিরাপদ, টেকসই এবং মর্যাদাপূর্ণ প্রত্যাবাসন নিশ্চিত করতে আন্তর্জাতিক রেড ক্রস কমিটির (আইসিআরসি) আরও সহায়ক ভূমিকার ওপর জোর দিচ্ছে বাংলাদেশ, জানিয়েছেন পররাষ্ট্রমন্ত্রী ড. এ কে আব্দুল মোমেন।

বাংলাদেশে নবনিযুক্ত আইসিআরসি প্রতিনিধিদলের প্রধান অ্যাগনেস ধুর তার প্রমাণপত্র পেশ করার সময় মন্ত্রী এ আহ্বান জানান।

বৈঠকে পররাষ্ট্রমন্ত্রী বাংলাদেশে কোভিড-১৯ মহামারির সময় আইসিআরসির ভূমিকার প্রশংসা করেন।

বাংলাদেশের শান্তিকেন্দ্র্রিক পররাষ্ট্রনীতির কথা উল্লেখ করে ড. মোমেন বলেন, আইসিআরসি একটি বিশ্বস্ত আন্তর্জাতিক সংস্থা। বিশ্বব্যাপী শান্তি ও স্থিতিশীলতার জন্য কাজ করতে তিনি সম্মিলিত প্রচেষ্টার প্রয়োজনীয়তার ওপর জোর দেন।

১৯৭১ সালে মহান মুক্তিযুদ্ধের সময় বাংলাদেশি নাগরিকদের আইসিআরসির মানবিক সহায়তা এবং সমর্থন দেওয়ার কথা তিনি প্রশংসার সঙ্গে স্মরণ করেন। পাশাপাশি বাংলাদেশে অ্যাগনেস ধুর দায়িত্ব পালনে বাংলাদেশ সরকারের পূর্ণ সহায়তার আশ্বাস দেন পররাষ্ট্রমন্ত্রী।

আইসিআরসি প্রতিনিধিদলের প্রধান পররাষ্ট্রমন্ত্রীকে কারাগারের পরিবেশের উন্নতি, স্যানিটেশন এবং পানীয় জলের বিষয়ে বাংলাদেশে তাদের কার্যক্রম সম্পর্কে অবহিত করেন।

একই সঙ্গে অ্যাগনেস ধুর আগামী বছরগুলোতে বাংলাদেশ ও আইসিআরসির মধ্যে সহযোগিতা আরও জোরদার করার ইচ্ছা প্রকাশ করেন।