Dhaka , Wednesday, 29 May 2024

‘নিউইয়র্ক বাংলা বইমেলা’ শুরু আজ

  • Robiul Islam
  • আপডেট টাইম : 11:11:44 am, Friday, 14 July 2023
  • 49 বার

প্রবাস ডেস্ক: ‘যত বই তত প্রাণ’-শ্লোগানে নিউইয়র্ক বাংলা বইমেলার ৩২তম আসর জ্যামাইকা পারফর্মিং আর্টস সেন্টারে শুরু হচ্ছে আজ। বইমেলা উদ্বোধন করবেন কথাসাহিত্যিক শাহাদুজ্জামান। প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত থাকবেন বীর প্রতীক ক্যাপ্টেন (অব:) ডা. সিতারা বেগম।

অধিকাংশ আমন্ত্রিত অতিথি এবং বাংলাদেশের ২৫টি প্রকাশনা সংস্থার স্বত্বাধিকারী ও কর্মকর্তা ইতোমধ্যে নিউইয়র্ক এসেছেন বলে আয়োজকরা জানিয়েছেন। বইয়ের মাধ্যমে বাংলা ভাষা, সাহিত্য ও কৃষ্টিকে সারাবিশ্বে ছড়িয়ে দেওয়ার উদ্দেশে যুক্তরাষ্ট্রে এ আয়োজন করে আসছে মুক্তধারা।

এবারের বইমেলার আহ্বায়ক বিশ্বব্যাংকের সাবেক কর্মকর্তা ও লেখক ড. আবদূন নূর বলেন, সহস্রাধিক নতুন বই এসেছে। অনেক বই প্রকাশিত হয়েছে নিউ ইয়র্ক বাংলা বইমেলাকে সামনে রেখে। এবারের বইমেলায় স্টলের সংখ্যা বাড়ছে, নতুন করে যুক্ত হচ্ছে শিশু চত্বর। থাকবে চলচ্চিত্র প্রদর্শনী, প্রাসঙ্গিক বিষয়ে সেমিনার, গান ও কবিতা পাঠ। মেলায় নতুন বইয়ের মোড়ক উন্মোচনের ব্যবস্থা থাকছে, মেলা উপলক্ষে প্রকাশিত হচ্ছে বিশেষ সংকলন।

সূত্র জানায়, শুক্রবার সন্ধ্যা ৬টায় বেলুন উড়িয়ে ও ফিতা কেটে উদ্বোধনের পরই স্বাগত বক্তব্য দেবেন আব্দুন নূর। এরপর রানু ফেরদৌসের ব্যবস্থাপনায় ৩২ জন অতিথি উত্তরীয় পড়ে প্রদীপ প্রজ্জ্বলন করবেন। সাড়ে ৭টায় শুরু হবে পবন দাস বাউলের বিশেষ সঙ্গীতানুষ্ঠান।

মুক্তধারা ফাউন্ডেশনের চেয়ারপারসন একুশে পদকপ্রাপ্ত লেখক বীর মুক্তিযোদ্ধা নূরুন নবী বলেন, এবার বইমেলায় অনেক নতুন বিষয় যোগ করা হবে। যুক্তরাষ্ট্রের বিভিন্ন স্টেট এবং কানাডা, মেক্সিকো, ইউরোপ ও অস্ট্রেলিয়া থেকে অনেক লেখক এসেছেন। কলকাতার কবি সুবোধ সরকার, লেখক ও কলকাতা বইমেলার সভাপতি ত্রিদিব চট্টোপাধ্যায়, নারীবাদী লেখক কনা বসু মিশ্রসহ অনেক গুণী সাহিত্যিকের মূল্যবান কথায় সমৃদ্ধ হবে নিউইয়র্কের পাঠকরা।

পরদিন শনিবার সকাল ১১টায় দ্বিতীয় দিনের কর্মসূচি শুরু হবে খ্যাতনামা অর্থনীতিবিদ ও লেখক অধ্যাপক ড. বিরুপাক্ষ পালের সঞ্চালনায় লেখক-সাহিত্যমোদিগণের আড্ডার মধ্যদিয়ে। এদিন বেলা একটা থেকে তিনটা পর্যন্ত স্বল্পদৈর্ঘ চলচ্চিত্র প্রদর্শনী হবে মেলায়। শামীম আল আমিন পরিচালিত ‘স্বাধীনতা এই শব্দটি কীভাবে আমাদের হলো’ এবং নজরুল কবির পরিচালিত ‘রূপালী ডানা’ প্রদর্শনের পর তা নিয়ে আলোচনায় অংশ নেবেন বাংলাদেশের প্রথম প্রধানমন্ত্রী শহীদ তাজুদ্দিন আহমদের কন্যা লেখিকা শারমিন আহমদ, ড. আহমাদ আহসান এবং ড. প্রতাপ দাস।

এদিন অপরাহ্ন সাড়ে ৫টায় শুরু হবে ‘একুশ থেকে একাত্তর’ শীর্ষক আলোচনা। অংশ নেবেন লেখক শারমিন আহমেদ, অধ্যাপক এ বি এম নাসির এবং অধ্যাপক দেলোয়ার আরিফ। শহীদ সন্তান ফাহিম রেজাস নূরের সঞ্চালনায় এ পর্বে সভাপতিত্ব করেন বীর মুক্তিযোদ্ধা ড. নূরুন্নবী।

মুক্তধারা ফাউন্ডেশনের প্রতিষ্ঠাতা ও সাধারণ সম্পাদক বিশ্বজিত সাহা বলেন, এবারও বইমেলায় মুক্তধারা-জিএফবি সাহিত্য পুরস্কার দেওয়া হবে। পুরস্কারের অর্থমূল্য তিন হাজার মার্কিন ডলার। গত বছর এই পুরস্কার পেয়েছেন অধ্যাপক গোলাম মুরশিদ। এছাড়া মেলায় অংশ নেওয়া একটি প্রকাশনা সংস্থাকে চিত্তরঞ্জন সাহা সেরা প্রকাশনা সংস্থা পুরস্কার দেওয়া হবে। এর মূল্যমান ১০০০ মার্কিন ডলার।

Tag :

Write Your Comment

Your email address will not be published. Required fields are marked *

Save Your Email and Others Information

About Author Information

Robiul Islam

‘নিউইয়র্ক বাংলা বইমেলা’ শুরু আজ

আপডেট টাইম : 11:11:44 am, Friday, 14 July 2023

প্রবাস ডেস্ক: ‘যত বই তত প্রাণ’-শ্লোগানে নিউইয়র্ক বাংলা বইমেলার ৩২তম আসর জ্যামাইকা পারফর্মিং আর্টস সেন্টারে শুরু হচ্ছে আজ। বইমেলা উদ্বোধন করবেন কথাসাহিত্যিক শাহাদুজ্জামান। প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত থাকবেন বীর প্রতীক ক্যাপ্টেন (অব:) ডা. সিতারা বেগম।

অধিকাংশ আমন্ত্রিত অতিথি এবং বাংলাদেশের ২৫টি প্রকাশনা সংস্থার স্বত্বাধিকারী ও কর্মকর্তা ইতোমধ্যে নিউইয়র্ক এসেছেন বলে আয়োজকরা জানিয়েছেন। বইয়ের মাধ্যমে বাংলা ভাষা, সাহিত্য ও কৃষ্টিকে সারাবিশ্বে ছড়িয়ে দেওয়ার উদ্দেশে যুক্তরাষ্ট্রে এ আয়োজন করে আসছে মুক্তধারা।

এবারের বইমেলার আহ্বায়ক বিশ্বব্যাংকের সাবেক কর্মকর্তা ও লেখক ড. আবদূন নূর বলেন, সহস্রাধিক নতুন বই এসেছে। অনেক বই প্রকাশিত হয়েছে নিউ ইয়র্ক বাংলা বইমেলাকে সামনে রেখে। এবারের বইমেলায় স্টলের সংখ্যা বাড়ছে, নতুন করে যুক্ত হচ্ছে শিশু চত্বর। থাকবে চলচ্চিত্র প্রদর্শনী, প্রাসঙ্গিক বিষয়ে সেমিনার, গান ও কবিতা পাঠ। মেলায় নতুন বইয়ের মোড়ক উন্মোচনের ব্যবস্থা থাকছে, মেলা উপলক্ষে প্রকাশিত হচ্ছে বিশেষ সংকলন।

সূত্র জানায়, শুক্রবার সন্ধ্যা ৬টায় বেলুন উড়িয়ে ও ফিতা কেটে উদ্বোধনের পরই স্বাগত বক্তব্য দেবেন আব্দুন নূর। এরপর রানু ফেরদৌসের ব্যবস্থাপনায় ৩২ জন অতিথি উত্তরীয় পড়ে প্রদীপ প্রজ্জ্বলন করবেন। সাড়ে ৭টায় শুরু হবে পবন দাস বাউলের বিশেষ সঙ্গীতানুষ্ঠান।

মুক্তধারা ফাউন্ডেশনের চেয়ারপারসন একুশে পদকপ্রাপ্ত লেখক বীর মুক্তিযোদ্ধা নূরুন নবী বলেন, এবার বইমেলায় অনেক নতুন বিষয় যোগ করা হবে। যুক্তরাষ্ট্রের বিভিন্ন স্টেট এবং কানাডা, মেক্সিকো, ইউরোপ ও অস্ট্রেলিয়া থেকে অনেক লেখক এসেছেন। কলকাতার কবি সুবোধ সরকার, লেখক ও কলকাতা বইমেলার সভাপতি ত্রিদিব চট্টোপাধ্যায়, নারীবাদী লেখক কনা বসু মিশ্রসহ অনেক গুণী সাহিত্যিকের মূল্যবান কথায় সমৃদ্ধ হবে নিউইয়র্কের পাঠকরা।

পরদিন শনিবার সকাল ১১টায় দ্বিতীয় দিনের কর্মসূচি শুরু হবে খ্যাতনামা অর্থনীতিবিদ ও লেখক অধ্যাপক ড. বিরুপাক্ষ পালের সঞ্চালনায় লেখক-সাহিত্যমোদিগণের আড্ডার মধ্যদিয়ে। এদিন বেলা একটা থেকে তিনটা পর্যন্ত স্বল্পদৈর্ঘ চলচ্চিত্র প্রদর্শনী হবে মেলায়। শামীম আল আমিন পরিচালিত ‘স্বাধীনতা এই শব্দটি কীভাবে আমাদের হলো’ এবং নজরুল কবির পরিচালিত ‘রূপালী ডানা’ প্রদর্শনের পর তা নিয়ে আলোচনায় অংশ নেবেন বাংলাদেশের প্রথম প্রধানমন্ত্রী শহীদ তাজুদ্দিন আহমদের কন্যা লেখিকা শারমিন আহমদ, ড. আহমাদ আহসান এবং ড. প্রতাপ দাস।

এদিন অপরাহ্ন সাড়ে ৫টায় শুরু হবে ‘একুশ থেকে একাত্তর’ শীর্ষক আলোচনা। অংশ নেবেন লেখক শারমিন আহমেদ, অধ্যাপক এ বি এম নাসির এবং অধ্যাপক দেলোয়ার আরিফ। শহীদ সন্তান ফাহিম রেজাস নূরের সঞ্চালনায় এ পর্বে সভাপতিত্ব করেন বীর মুক্তিযোদ্ধা ড. নূরুন্নবী।

মুক্তধারা ফাউন্ডেশনের প্রতিষ্ঠাতা ও সাধারণ সম্পাদক বিশ্বজিত সাহা বলেন, এবারও বইমেলায় মুক্তধারা-জিএফবি সাহিত্য পুরস্কার দেওয়া হবে। পুরস্কারের অর্থমূল্য তিন হাজার মার্কিন ডলার। গত বছর এই পুরস্কার পেয়েছেন অধ্যাপক গোলাম মুরশিদ। এছাড়া মেলায় অংশ নেওয়া একটি প্রকাশনা সংস্থাকে চিত্তরঞ্জন সাহা সেরা প্রকাশনা সংস্থা পুরস্কার দেওয়া হবে। এর মূল্যমান ১০০০ মার্কিন ডলার।