Dhaka , Wednesday, 29 May 2024

সেখানে পর্যটকদের পা পড়েনি এখনও, ভিড় বাড়ার আগেই ঘুরে আসুন

  • Reporter Name
  • আপডেট টাইম : 03:02:33 am, Sunday, 7 April 2024
  • 57 বার

ভ্রমণপিপাসুদের প্রথম পছন্দ ইউরোপ, আমেরিকা, পশ্চিম এশিয়া। বর্তমানে আফ্রিকা ও এশিয়ার বিভিন্ন দেশও ভ্রমণে জনপ্রিয়তা পেয়েছে। এছাড়া ভ্রমণার্থীদের তালিকায় শীর্ষে আছে নিউজিল্যান্ড কিংবা অস্ট্রেলিয়া।

তবে বর্তমানে এমন কয়েকটি জায়গার সন্ধান মিলেছে যেগুলো অপেক্ষাকৃত কম পরিচিত। সেখানে পর্যটকদের বেশি পা পড়েনি এখনও, ভিড় বাড়ার আগেই ঘুরে আসুন সেখান থেকে।

নাউরু
তালিকায় প্রথমে আছে নাউরু। ছোট্ট এই দ্বীপরাষ্ট্রে ২০১৭ সালে মাত্র ১৩০ জন পর্যটকের আগমন ঘটেছিল। অস্ট্রেলিয়ার উত্তর-পূর্বে অবস্থিত এই দ্বীপরাষ্ট্রে পৌঁছনোর জন্য কী করণীয়?

ব্রিসবেন থেকে চার ঘণ্টার সরাসরি উড়ানে চেপে পড়লেই পৌঁছে যাবেন এখানে। কম্যান্ড রিজ এখানকার অন্যতম প্রধান আকর্ষণ। এছাড়া এখানকার বালুকাবেলা সৈকত, প্রবাল প্রাচীরও দেখার মতো।

টুভালু
দক্ষিণ প্রশান্ত মহাসাগরের ট্রপিক্যাল দ্বীপরাষ্ট্র টুভালু। মোট ৯টি দ্বীপপুঞ্জ এবং প্রবাল প্রাচীর নিয়ে তৈরি রাষ্ট্র। ২০১৭ সালে মাত্র ৮০০ পর্যটক সমাগম হয়েছিল। এর প্রধান দ্বীপপুঞ্জ ফুনাফুটিই এখানকার বিশেষ আকর্ষণ। বোটে চেপে সাঁতার এবং স্নরকেলিংয়ের রোমাঞ্চ উপভোগ করতে পারবেন এখানে।

ইক্যুয়িটোরিয়াল গিনি
আফ্রিকা মহাদেশের পশ্চিম উপকূলে ক্যামেরন ও গ্যাবনের মধ্যবর্তী অংশে অবস্থিত ছোট্ট দেশটি হল ইক্যুয়িটোরিয়াল গিনি। এখানকার মূল আকর্ষণ হল কঙ্গো রেনফরেস্ট। সবুজে ভরা দৃশ্য, বন্যপ্রাণ উপভোগ করার সুযোগ মিলবে।

সাও টোম অ্যান্ড প্রিন্সিপে


আফ্রিকার পশ্চিম উপকূলে অবস্থিত দুটি দ্বীপপুঞ্জের এই দেশ আসলে আগ্নেয়গিরির অংশ। দুর্দান্ত পাথুরে গঠন, বালিয়াড়ি সৈকত এবং ট্রপিক্যাল জঙ্গল উপভোগ করতে পারবেন পর্যটকেরা। এখানকার রাজধানী শহর স্যান্টো অ্যান্তোনিও খুবই আকর্ষণীয়।

কিরিবাটি


মধ্য প্রশান্ত মহাসাগরে মোট ৩৩টি দ্বীপপুঞ্জ এবং প্রবাল প্রাচীর নিয়ে তৈরি এই দেশ। সাদা বালির সমুদ্রসৈকত ও রঙিন লেগুন এখানকার মূল আকর্ষণ।

লাইবেরিয়া
এখানকার মূল আকর্ষণ হল স্যাপো ন্যাশনাল পার্ক। যা পশ্চিম আফ্রিকার মধ্যে খুবই জনপ্রিয়। এরপর নিম্বা পর্বতে হাইকিংও রয়েছে। এখানে আসতে গেলে ইয়েলো ফিভারের ভ্যাকসিনেশনের প্রমাণপত্র সঙ্গে থাকা আবশ্যক।

টোঙ্গা
দক্ষিণ প্রশান্ত মহাসাগরের ১৭০টিরও বেশি দ্বীপপুঞ্জ নিয়ে গঠিত ছোট্ট দেশ টোঙ্গা। সাদা বালির সৈকত, নীলচে-সবুজ জলের লেগুন এবং বিশাল প্রবালপ্রাচীর এখানকার মূল আকর্ষণ। এখানে এলে পর্যটকরা মেতে উঠতে পারবেন অ্যাডভেঞ্চারে।

ইস্ট টিমোর
দক্ষিণ-পূর্ব এশিয়ার ইস্ট টিমোর অপরূপ প্রাকৃতিক সৌন্দর্যে ভরপুর। সমুদ্র উপকূল, প্রাণবন্ত প্রবাল প্রাচীর -সব মিলিয়ে সামুদ্রিক দৃশ্য উপভোগ করতে পারবেন পর্যটকরা। আর সবথেকে বড় কথা হল, এখানে প্রচুর পরিমাণে তিমি এবং ডলফিনও দেখা যায়।

 

Tag :

Write Your Comment

Your email address will not be published. Required fields are marked *

Save Your Email and Others Information

About Author Information

Robiul Islam

সেখানে পর্যটকদের পা পড়েনি এখনও, ভিড় বাড়ার আগেই ঘুরে আসুন

আপডেট টাইম : 03:02:33 am, Sunday, 7 April 2024

ভ্রমণপিপাসুদের প্রথম পছন্দ ইউরোপ, আমেরিকা, পশ্চিম এশিয়া। বর্তমানে আফ্রিকা ও এশিয়ার বিভিন্ন দেশও ভ্রমণে জনপ্রিয়তা পেয়েছে। এছাড়া ভ্রমণার্থীদের তালিকায় শীর্ষে আছে নিউজিল্যান্ড কিংবা অস্ট্রেলিয়া।

তবে বর্তমানে এমন কয়েকটি জায়গার সন্ধান মিলেছে যেগুলো অপেক্ষাকৃত কম পরিচিত। সেখানে পর্যটকদের বেশি পা পড়েনি এখনও, ভিড় বাড়ার আগেই ঘুরে আসুন সেখান থেকে।

নাউরু
তালিকায় প্রথমে আছে নাউরু। ছোট্ট এই দ্বীপরাষ্ট্রে ২০১৭ সালে মাত্র ১৩০ জন পর্যটকের আগমন ঘটেছিল। অস্ট্রেলিয়ার উত্তর-পূর্বে অবস্থিত এই দ্বীপরাষ্ট্রে পৌঁছনোর জন্য কী করণীয়?

ব্রিসবেন থেকে চার ঘণ্টার সরাসরি উড়ানে চেপে পড়লেই পৌঁছে যাবেন এখানে। কম্যান্ড রিজ এখানকার অন্যতম প্রধান আকর্ষণ। এছাড়া এখানকার বালুকাবেলা সৈকত, প্রবাল প্রাচীরও দেখার মতো।

টুভালু
দক্ষিণ প্রশান্ত মহাসাগরের ট্রপিক্যাল দ্বীপরাষ্ট্র টুভালু। মোট ৯টি দ্বীপপুঞ্জ এবং প্রবাল প্রাচীর নিয়ে তৈরি রাষ্ট্র। ২০১৭ সালে মাত্র ৮০০ পর্যটক সমাগম হয়েছিল। এর প্রধান দ্বীপপুঞ্জ ফুনাফুটিই এখানকার বিশেষ আকর্ষণ। বোটে চেপে সাঁতার এবং স্নরকেলিংয়ের রোমাঞ্চ উপভোগ করতে পারবেন এখানে।

ইক্যুয়িটোরিয়াল গিনি
আফ্রিকা মহাদেশের পশ্চিম উপকূলে ক্যামেরন ও গ্যাবনের মধ্যবর্তী অংশে অবস্থিত ছোট্ট দেশটি হল ইক্যুয়িটোরিয়াল গিনি। এখানকার মূল আকর্ষণ হল কঙ্গো রেনফরেস্ট। সবুজে ভরা দৃশ্য, বন্যপ্রাণ উপভোগ করার সুযোগ মিলবে।

সাও টোম অ্যান্ড প্রিন্সিপে


আফ্রিকার পশ্চিম উপকূলে অবস্থিত দুটি দ্বীপপুঞ্জের এই দেশ আসলে আগ্নেয়গিরির অংশ। দুর্দান্ত পাথুরে গঠন, বালিয়াড়ি সৈকত এবং ট্রপিক্যাল জঙ্গল উপভোগ করতে পারবেন পর্যটকেরা। এখানকার রাজধানী শহর স্যান্টো অ্যান্তোনিও খুবই আকর্ষণীয়।

কিরিবাটি


মধ্য প্রশান্ত মহাসাগরে মোট ৩৩টি দ্বীপপুঞ্জ এবং প্রবাল প্রাচীর নিয়ে তৈরি এই দেশ। সাদা বালির সমুদ্রসৈকত ও রঙিন লেগুন এখানকার মূল আকর্ষণ।

লাইবেরিয়া
এখানকার মূল আকর্ষণ হল স্যাপো ন্যাশনাল পার্ক। যা পশ্চিম আফ্রিকার মধ্যে খুবই জনপ্রিয়। এরপর নিম্বা পর্বতে হাইকিংও রয়েছে। এখানে আসতে গেলে ইয়েলো ফিভারের ভ্যাকসিনেশনের প্রমাণপত্র সঙ্গে থাকা আবশ্যক।

টোঙ্গা
দক্ষিণ প্রশান্ত মহাসাগরের ১৭০টিরও বেশি দ্বীপপুঞ্জ নিয়ে গঠিত ছোট্ট দেশ টোঙ্গা। সাদা বালির সৈকত, নীলচে-সবুজ জলের লেগুন এবং বিশাল প্রবালপ্রাচীর এখানকার মূল আকর্ষণ। এখানে এলে পর্যটকরা মেতে উঠতে পারবেন অ্যাডভেঞ্চারে।

ইস্ট টিমোর
দক্ষিণ-পূর্ব এশিয়ার ইস্ট টিমোর অপরূপ প্রাকৃতিক সৌন্দর্যে ভরপুর। সমুদ্র উপকূল, প্রাণবন্ত প্রবাল প্রাচীর -সব মিলিয়ে সামুদ্রিক দৃশ্য উপভোগ করতে পারবেন পর্যটকরা। আর সবথেকে বড় কথা হল, এখানে প্রচুর পরিমাণে তিমি এবং ডলফিনও দেখা যায়।